শুক্রবার, ২৩ আগস্ট, ২০১৯

তানজিন তিশার প্রেমের গুঞ্জন! বের হল আসল তথ্য>> SSTV Bangla


মডেল-অভিনেত্রী তানজিন তিশার প্রেমের গুঞ্জন মিডিয়া পাড়ায় বহুদিনের। 
শুরুতে কথা রটে জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী হাবিবের সঙ্গে প্রেম করছেন এই অভিনেত্রী। জানা যায়, একটি মিউজিক ভিডিওতে কাজ করতে গিয়ে কাছাকাছি আসেন হাবিব-তিশা। এরপর জড়িয়ে পড়েন প্রেমে।এরই মধ্যে এই অভিনেত্রীর নতুন প্রেমে জড়ানোর গুঞ্জন উঠেছে। তিশা নাকি এখন প্রেম করছেন জাবিন ইকবাল জাহিন নামে এক ফ্যাশন ডিজাইনারের সঙ্গে। জাহিন ও তিশার ফেসবুক প্রোফাইলেও প্রেমের আভাস মিলেছে।





 তিশার সঙ্গে বেশ কয়েকটি ঘনিষ্ট ছবি দেখা গেছে জাহিনের ফেসবুক প্রোফাইলে।জাহিনের ঘনিষ্ট একটি সূত্র এই জানিয়েছেন, কোনো এক শোতে জাহিনের সঙ্গে তিশার পরিচয়। জাহিন-তিশার এই সম্পর্কের বিষয়টি দুজনের পরিবারও জানে। বর্তমানে তিশা ও জাহিন ঈদের ছুটি কাটাচ্ছেন অস্ট্রেলিয়ায়। সেখানে দুজনের বেশ কয়েকটি ছবি ফেসবুকে পোস্ট করেছেন তারা।প্রেমের গুঞ্জনের সত্যতা জানতে যোগাযোগের চেষ্টা করা হয় তিশার সঙ্গে। অস্ট্রেলিয়ায় থাকায় তার ফোন নম্বর বন্ধ পাওয়া গেছে। হোয়াটসঅ্যাপ ও ভাইবারের মাধ্যমে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলেও তাকে পাওয়া যায়নি। 




জাহিনের বক্তব্য নেওয়াও সম্ভব হয়নি।আরও পড়ুন…আলোচিত মডেল, আইটেম গার্ল নায়লা নাঈমের বন্ধুত্ব পেতে আপনাকে খরচ করতে হবে ৫শ টাকা। এই টুকু পড়েই কি অবাক হয়ে যাচ্ছেন? অবাক নয়, বাস্তবই পড়ছেন। বুধবার (২১ আগস্ট) খবরটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে জানিয়েছেন তিনি নিজেই। সেখানে জানিয়েছেন, তার বন্ধু হতে চাইলে ৫০০ টাকা দান করতে হবে। আর সেই টাকা ঘোড়ার চিকিৎসায় ব্যয় করবেন নায়লা নাঈম।




ফেসবুকে নায়লা নাঈম লিখেছেন, সর্বসাধারণের জ্ঞাতার্থে জানানো যাচ্ছে যে, আমি ১০ জন অপরিচিত বন্ধুর ফ্রেন্ড রিকোয়েষ্ট একসেপ্ট করবো এবং প্রতিটি ফ্রেন্ড রিকোয়েস্টের জন্য ৫০০ টাকা করে চার্জ করবো।নায়লা নাঈম জানিয়েছেন, বন্ধুত্বের বিনিময়ে পাওয়া ৫ হাজার টাকা একটি অসুস্থ ঘোড়ার চিকিৎসার জন্য ব্যয় করবেন। স্ট্যাটাসে তিনি আহত ঘোড়াটির একটি ভিডিও লিংকও সংযুক্ত করেছেন।স্ট্যাটাসে নায়লা নাঈম টাকার পাঠানোর জন্য দু’টি বিকাশ নাম্বারও দিয়েছেন। পাঠানোর পর নাম্বারের শেষের তিনটি ডিজিট ম্যাসেজ করতে বলেছেন লায়লা নাঈম। 

শেয়ার করুন

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.

0 coment rios:

ধন্যবাদ আপনার সচেতন মন্তব্যের জন্য।