বুধবার, ২২ এপ্রিল, ২০২০

বান্দরবানে মিলল ৩ রোগী




একদিন থেমে চট্টগ্রামে আবার স্বরূপে ফিরলো নভেল করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯)। প্রথমবারের মত চট্টগ্রামের চন্দনাইশের ১০ মাস বয়সী শিশুর শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। মঙ্গলবার (২১ এপ্রিল) চট্টগ্রামের একমাত্র করোনা পরীক্ষাগারের সর্বশেষ পরীক্ষায় মোট চারজনের শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হল। এই চারজনের মধ্যে একজন ১০ মাস বয়সী শিশু এবং বাকি তিনজন পার্বত্য চট্টগ্রামের বান্দরবানের বাসিন্দা।

চট্টগ্রামে শনাক্ত হওয়া ১০ মাস বয়সী শিশুর বাড়ি জেলার চন্দনাইশ উপজেলার পূর্ব জোয়ারার তিন নম্বর ওয়ার্ডের। এর আগে চট্টগ্রামের পটিয়ায় ছয় বছর বয়সী এক শিশুর শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। পরে ওই শিশুর মৃত্যু ঘটে।

বান্দরবানে শনাক্ত হওয়া ৩ জনের মধ্যে দুজন থানচি ও একজন লামা উপজেলার বাসিন্দা। থানচির দুই রোগীই পুরুষ এবং তাদের বয়স ৩৫। অন্যদিকে লামার রোগী ৩২ বছর বয়সী এক নারী।

ফৌজদারহাটের বিশেষায়িত হাসপাতাল ইনস্টিটিউট অব ট্রপিক্যাল অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজেসে (বিআইটিআইডি) ল্যাবে গত ২৪ ঘন্টায় মোট ১৪০টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। নতুন এই শিশুসহ চট্টগ্রামে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ৪০ জনে। এর মধ্যে মহানগরে ২৪ জন এবং বিভিন্ন উপজেলায় ১৬ জন। পার্বত্য চট্টগ্রামে তিন জন। শনাক্ত হওয়া পুরুষ রোগী ৩০ জন এবং নারী রোগী ৯ জন।


এদিকে এ পর্যন্ত চট্টগ্রাম বিভাগে করোনার মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ১ হাজার ৭২০টি। তার মধ্যে করোনা পজেটিভ ৭৫ জন। জেলার হিসেবে চট্টগ্রাম জেলায় মোট পজিটিভ ৪০ জন, লক্ষ্মীপুরে ২৬ জন, নোয়াখালীতে ৪ জন, বান্দরবানে ৩ জন এবং ফেনীতে ২ জন করোনা পজিটিভ পাওয়া গেছে।

সংক্রমিত রোগীদের মধ্যে জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ২৭ জন এবং বিআইটিআইডিতে ৪ জন এবং নিজ বাসায় রয়েছেন একজন। শনাক্ত হওয়া রোগীদের মধ্যে ইতিমধ্যে ২ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে এবং মৃত্যু হয়েছে শিশু, নারী ও পুরুষসহ ৫ জনের।

চট্টগ্রাম প্রতিদিনকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বি।


শেয়ার করুন

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.