রবিবার, ১০ মে, ২০২০

অবশেষে নোয়াখালীর ভাসানচরে ৩০৬ জন রোহিঙ্গা কে স্থানান্তর করা হলো!



এফ.এম শাহ রিপন,স্টাফ রিপোর্টারঃ

নোয়াখালীর ভাসানচরে ৩০৬ জন রোহিঙ্গাকে স্থানান্তর করা হয়েছে। শুক্রবার ৮ এপ্রিল রোহিঙ্গাদের একটি দলকে স্থানান্তর করা হয়েছে। দলটিতে নারী-শিশুসহ মোট ২৭৭ জন সদস্য রয়েছে। শুক্রবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে তাদের ভাসানচরে আনা হয়। এর আগে গত রবিবার ৩ মে নারী শিশুসহ ২৯ জনকে আনা হয়।

রবিবার ১০ মে দুপুরে ভাসানচরে দায়িত্বপালনকারী নৌ-বাহিনীর কর্মকর্তা লেফটেন্যান্ট আবদুর রশিদ বিষয়টি জানান।

তিনি জানান, শুক্রবার দুপুরে নারী-পুরুষসহ রোহিঙ্গাদের একটি দলকে আনা হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, দলটিতে ২৭৭ জন রোহিঙ্গা রয়েছে। গণনার প্রক্রিয়া চলছে।

তিনি আরও জানান, বর্তমানে তাদের ভাসানচরের আশ্রয়ন প্রকল্পের ক্লাস্টার হাউজে সামাজিক দূরত্বে আলাদা করে রাখার ব্যবস্থা করা হয়েছে। তাদের খাওয়া-দাওয়ার ব্যবস্থা সরকারিভাবে করা হচ্ছে এবং তাদের চিকিৎসার জন্য চিকিৎসক রয়েছেন।

এর আগে, গত ৩ মে সাগরে ছোট একটি বোটে রোহিঙ্গাদের ভাসতে দেখে ২৯ জনকে নৌ-বাহিনীর সদস্যরা উদ্ধার করে। এরপর তাদের ভাসানচরে আনা হয় এবং প্রত্যেককে হোম কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়।

এ ব্যাপাপে নোয়াখালী পুলিশ সুপার আলমগীর হোসেন জানান, ভাসানচরে মোট ৩০৬ রেহিঙ্গাকে আনা হয়েছে। প্রথম দফায় ২৯ জন তাদের মধ্যে ৮ জন পুরুষ এবং বাকিরা নারী, দ্বিতীয় দফায় ২৭৭ জনের মধ্যে ১৬৮ জন নারী এবং বাকিরা পুরুষ। তাদের নিরাপত্তায় নৌ-বাহিনী ও পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। তাদের আলাদা আলাদা ভাবে হোম কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়েছে।

তবে এ ব্যাপারে কিছুই জানাতে পারেননি নোয়াখালী জেলা প্রশাসক তন্ময় দাস। তিনি বলেন, এ ব্যাপারে নৌ-বাহিনী ভালো বলতে পারবেন। ভাসানচরকে এখনোও পর্যন্ত আনুষ্ঠানিকভাবে নোয়াখালী জেলা প্রশাসনের কাছে হস্তান্তরই করা হয়নি।

শেয়ার করুন

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.