শনিবার, ৬ জুন, ২০২০

নোয়াখালীর সেনবাগে করোনা শনাক্ত ১০,আক্রান্ত ৬৬,সুস্থ ৭ ও মৃত্যু ৬!






  
এফ এম শাহ রিপন,স্টাফ রিপোর্টারঃ
নোয়াখালীর সেনবাগে একটি পৌরসভা ও ৬টি ইউনিয়নে নতুন করে আরো ১০ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে সেনবাগ পৌরসভায়-২ জন, কাবিলপুর ইউপি'তে-২, কেশারপাড় ইউপি'তে -২, অর্জুনতলা ইউপি'তে-১ , বীজবাগ ইউপি'তে-১, ডমুরুয়া ইউপি'তে -১ ও মোহাম্মদপুর ইউপি'তে ১ জন।

সেনবাগ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাক্তার মতিউর রহমান জানান, গত ৪ জুন করোনা উপসর্গ জ্বর, সর্দি, কাশি ও গলা ব্যাথা নিয়ে ১০ জন করোনা পরীক্ষার জন্য সেনবাগ হাসপাতালে নমুনা সরবরাহ করে। নমুনাগুলো পরীক্ষার জন্য নোয়াখালী আবদুল মালেক উকিল মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের পিসিআর ল্যাবে প্রেরণ করেন।

এরপর নমুনাগুলো পরীক্ষার পর আজ শনিবার তাদের শরীরে করোনা শনাক্তের বিষয়টি নিশ্চিত করলে। সেনবাগ উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগের পক্ষ থেকে আক্রান্ত ব্যাক্তিদের বাড়িগুলো লকডাউন করে এবং রোগীদের প্রয়োজনীয় ঔষধ সরবরাহ করেন।

আক্রান্তকৃতরা হলেন- সেনবাগ পৌরসভার বিন্নাগুনি গ্রামের আবুল কালাম আজাদ (৬৫), মোহাম্মদ সাহাব উদ্দিন(৬৫), পৌরসভার উত্তর শাহাপুর গ্রামের জহিরুল আলম (৪০), কাবিলপুর ইউপি'র মহিদীপুর গ্রামের মনোয়ার হোসেন (৪৫), বীজবাগ ইউপি'র বালিয়াকান্দি গ্রামের মোহাম্মদ আবদুল্লাহ (৬৫),ডমুরুয়া ইউপি'র হরিণকাটা গ্রামের মোঃ জাকির হোসেন (৫৩), মোহাম্মদপুর ইউপি'র রাজারামপুর গ্রামের মোঃ জয়নাল আবদিন(৫২),অর্জুনতলা ইউপি'র ইদিলপুর গ্রামের মনিরুল ইসলাম (৩৫) ও কেশারপাড় ইউপি'র বীরকোর্ট গ্রামের মজিবুল হক এবং সাবিনা আক্তার।

এ ছাড়াও পূর্বের ২ জনের ২য় টেষ্টে করোনা পজিটিভ এসেছে।তারা হলেন-কাদরা ইউপি'র তাহেরপুর গ্রামের সাইফুল ও কাবিলপুর ইউপি'র শায়েস্তানগর গ্রামের ইয়াছিন।

সেনবাগে সর্বমোট করোনায় আক্রান্ত ৬৬ জনের মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৭ জন। তারা হলেন- কাবিলপুর ইউপি'র আজিজপুর পাঁচানী বাড়ির রুপালী ব্যাংক কর্মকর্তা আবু নাছের, ছাতারপাইয়া ইউপি'র বসন্তপুর গ্রামের জনতা ব্যাংক স্টাফ সফিউর রহমান ও একই ইউপি'র সোনাকান্দি গ্রামের আবুল হাশেম,সেনবাগ পৌর সভার গৃহবধু উম্মে সালমা, উত্তর শাহাপুরের সামছুন নাহার ও শারমিন আলম, তাহেরপুরের মমিন আলম। এবং করোনায় সংক্রমিত হয়ে এ পর্যন্ত মৃত্যুবরণ করেছে মোট ৬ জন।

শেয়ার করুন

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.