সোমবার, ২৮ মার্চ, ২০২২

রৌমারীতে টিসিবির কার্ড প্রতি নেওয়া হচ্ছে ১০০ টাকা করে।




স্টাফ রিপোর্টার রৌমারী, কুড়িগ্রাম রৌমারী উপজেলার  বন্দবেড়  ইউনিয়নের ট্রেডিং কর্পোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি'র) উপকারভোগী তালিকা তৈরীতে টাকা নেয়ার অভিযোগ উঠেছে ৭নং ওয়ার্ড-মেম্বার আক্কাস আলীর বিরুদ্ধে।

স্থানীয়রা অভিযোগ করেছেন, বন্দবেড় ইউনিয়নে ৭নং ওয়ার্ড বাড়ি বাড়ি গিয়ে অতি দরিদ্র লোকদের তালিকাভুক্ত করা হয়নি। বাড়িতে বসেই টিসিবির উপকারভোগীদের তালিকা তৈরী করা হয়েছে। প্রত্যেকটা নামের প্রতি নেওয়া হচ্ছে ৫০ থেকে ১০০ টাকা করে। তালিকায় একই পরিবারের একাধিক সদস্য, মেম্বার- আত্মীয়-স্বজন, স্বচ্ছল, প্রবাসীর স্ত্রী ও সরকারী সুবিাধাভোগী লোকজনদের উপকারভোগীর তালিকায় অন্তর্ভূক্ত করা হয়েছে।


অতি দরিদ্র জনগোষ্টীকে তালিকায় উপকারভোগী হিসেবে অন্তর্ভূক্তির জন্য সরকারী নির্দেশনা থাকলেও সেটি মানা হয়নি। মেম্বার আস্থাভাজন লোকজনকে তালিকাভুক্ত করে উপকারভোগীদের তালিকা রৌমারী উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ে জমা দেয়া হয়েছে। 

৭নং ওয়ার্ড-মেম্বার নিজে ইচ্ছেমতো স্বজনপ্রীতির মাধ্যমে নিজস্ব লোকজনদের তালিকাভুক্ত করে সরকারের একটি জনহিতকর মহৎ কাজকে বিতর্কের মুখে ঠেলে দেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন দুলাল ।

বন্দবেড়  ইউনিয়নের ইউপি সচিব বলেন, ৭নং ওয়ার্ডে টিসিবি’র তালিকা তৈরীতে ব্যাপক অনিয়ম হয়েছে। বিষয়টা চেয়ারম্যান কে জানানো হয়েছে।


 এ বিষয়ে ইউপি চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা কাদের হোসেন বলেন-, তাকে সতর্ক করা হয়েছে এ ধরনের কাজ যদি আবারও তিনি করেন তাহলে তার ইউপি সদস্য পদ বাতিল করা হবে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের মাধ্যমে।


টাকা নেওয়ার বিষয়ে ইউপি সদস্য আক্কাস আলী এ বিষয়ে কথা বলতে রাজি হয়নি


শেয়ার করুন

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.

0 coment rios:

ধন্যবাদ আপনার সচেতন মন্তব্যের জন্য।